পোর্ট সিটি ইউনিভার্সিটিতে প্রেসিডেন্টস্‌ কনফারেন্স

শুক্রবার , ৫ জানুয়ারি, ২০১৮ at ৭:০৯ পূর্বাহ্ণ
23

চলতি বছরের মার্চ মাসেই কল্পলোক আবাসিক এলাকায় স্থায়ী ক্যাম্পাসের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবে পোর্ট সিটি ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি। এছাড়াও ইঞ্জিনিয়ার্রস’ ইন্সটিটিউট, বাংলাদেশ (আইইবি)’এ অন্তর্ভুক্ত হওয়ার জন্যও আবেদন করবে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। গত ২ জানুয়রি পোর্ট সিটি ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত বার্ষিক ‘প্রেসিডেন্টস্‌ কনফারেন্স ২০১৮’তে সভাপতির বক্তব্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা, প্রেসিডেন্ট এ কে এম এনামুল হক শামীম একথা বলেন । ‘টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্যে গুণগত শিক্ষায় উৎকর্ষ সাধন’ এ শ্লোগানকে সামনে রেখে আয়োজিত এই সম্মেলনে দশটি বিভাগের সভাপতিবৃন্দ স্বস্ব বিভাগের ২০১৭ সালের অর্জন ও ২০১৮ সালের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা উপস্থাপন করেন। এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন দপ্তরের প্রশাসনিক প্রধানরা তাদের কর্মকান্ড নিয়ে আলোকপাত করেন। সম্মেলনে বিভিন্ন বিভাগের কোঅর্ডিনেটরবৃন্দ বিশ্ববিদ্যালয়ের অগ্রগতি নিয়ে পরামর্শমূলক বক্তব্য রাখেন।

এছাড়া উন্মুক্ত আলোচনা পর্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের অগ্রগতির জন্য শিক্ষক ও কর্মকর্তাবৃন্দ তাদের গঠনমূলক পরামর্শ প্রদান করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. নূরল আনোয়ার তার বক্তব্যে সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার মাধ্যমেই বিশ্ববিদ্যালয়কে সামনে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। পোর্ট সিটি ইউনিভার্সিটিকে উন্নতমানের বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিণত করতে শিক্ষকদের গবেষণামূলক কাজ, প্রকাশনা এবং আন্তর্জাতিক নেটওয়ার্কিং ও প্রশিক্ষণের উপর গুরুত্ব দিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা। এতে প্রতিষ্ঠাকালীন থেকে বর্তমান পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অগ্রগতি ও উন্নয়নে অবদান রাখার স্বীকৃতিস্বরূপ উপাচার্য, ডিন, শিক্ষক, কোঅর্ডিনেটর, রেজিস্ট্রার, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীসহ ২৯ জনকে প্রেসিডেন্ট এওয়ার্ড ও সম্মাননা প্রদান করা হয়। এছাড়া সম্মেলনে বিশ্বদ্যালয়ের স্থায়ী ক্যাম্পাসের প্রাথমিক নকশা থ্রিডি প্রেজেন্টেশনের মাধ্যমে সবাইকে দেখানো হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা, ভাইস প্রেসিডেন্ট জহির আহমেদ, বোর্ড অব ট্রাস্টিজ’র সদস্য আবুল হাসেম মিয়া, বেগম আশ্রাফুননেসা, তাহমিনা খাতুন, প্রফেসর ড. এম. মজিবুর রহমান, প্রফেসর ড. নিজামুল হক ভুঁইয়া, মো. মিজানুর রহমান, শামীম আরা হক, ইল্পিতা আশরাফী হক, মো. আলী আজম স্বপন, আহসানুল হক রিজন, মাহফুজুল হায়দার চৌধুরী রোটন, এইচ. এম বদিউজ্জামান, বিজ্ঞান ও প্রকৌশল অনুষদের ডিন অধ্যাপক ইঞ্জিনিয়ার মফজল আহমেদ, রেজিস্ট্রার, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, সকল বিভাগের শিক্ষকবৃন্দ, কর্মকর্তাকমচারী এবং অতিথিবৃন্দ। সঞ্চালনার দায়িত্বে ছিলেন সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রভাষক আফসানা আলম ও কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রভাষক তৌসিফুর রহমান। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

x