রাসূলের (স) আদর্শ বিচ্যুত কেউ ইসলামের অনুসারী হতে পারে না

মাইজভাণ্ডারে ঈদে মিলাদুন্নবী মাহফিলে সৈয়দ এমদাদুল হক

বুধবার , ২০ ডিসেম্বর, ২০১৭ at ১০:৪৬ পূর্বাহ্ণ
16

মাইজভান্ডার দরবার শরীফের সাজ্জাদানশীন আলহাজ মওলানা শাহসুফী সৈয়দ এমদাদুল হক মাইজভান্ডারী () বলেছেন, রাসূলে করিম () মানবজাতির জন্য আল্লাহ তায়ালার পক্ষ থেকে সর্বশ্রেষ্ঠ নেয়ামত। তিনি বলেন, রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামই সকল ধর্মের মানুষের নিরাপত্তা ও নাগরিক অধিকারকে সমুন্নত রেখে বিশ্ববাসীর সামনে মানবতা ও মানবাধিকারের নজির সৃষ্টি করেছিলেন। ইসলামের সাম্য ও ভ্রাতৃত্বে অনন্য দর্শনকে তুলে ধরেছিলেন। গত শনিবার বাদ জোহর থেকে মাইজভান্ডার দরবার শরীফ শাহী ময়দানে আয়োজিত ঈদে মিলাদুন্নবী () মাহফিলে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। এমদাদুল হক মাইজভান্ডারী বলেন, রাসূল () এর আদর্শ বিচ্যুত কেউ প্রকৃত ইসলামের অনুসারী হতে পারে না।

প্রধান অতিথি ইমামে আহলে সুন্নাত আল্লামা কাযী নুরুল ইসলাম হাশেমী () বলেন, ইসলামের নামে অন্য ধর্মের মানুষের অধিকার হরণ যেমনিভাবে কোনো প্রকৃত ঈমানদাররা মেনে নিতে পারে না, তেমনিভাবে মিয়ানমার, ফিলিস্তিনিসহ মুসলিম দেশে দেশে গণহত্যাও বরদাশত করতে পারে না। মুসলিম গণহত্যার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ প্রতিবাদের আহ্বান জানান তিনি।

নায়েব সাজ্জাদানশীন আলহাজ্ব শাহজাদা সৈয়দ ইরফানুল হক মাইজভান্ডারী () বলেন, সূফীবাদ হলো শান্তিসম্প্রীতি ও মানবিক দর্শন। ইসলামের প্রকৃত চর্চা ও অনুশীলনে সূফীবাদই সঠিক পথ। বিভিন্ন নামে বিশ্বে ত্রাস সৃষ্টিকারী জঙ্গিরা কখনো ইসলামের অনুসারী হতে পারে না। ওদের বড় পরিচয় ওরা সন্ত্রাসী, খুনি ও দুর্বৃত্ত। এদের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধভাবে গণজাগরণ সৃষ্টি করতে হবে।

মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন, সাবেক মন্ত্রী জাফরুল ইসলাম চৌধুরী, আলহাজ সৈয়দুল হক খান, মাইজভান্ডারী ফাউন্ডেশনের কোচেয়ারম্যান ক্যাপ্টেন সৈয়দ সোহেল হাসনাত, চট্টগ্রাম চেম্বারের পরিচালক জহিরশুল ইসলাম চৌধুরী আলমগীর, শাহজাদা সৈয়দ এরহাম হোসাইন মাইজভান্ডারী। বিশেষ অতিথি ছিলেন, আলহ্মামা সৈয়দ মুহাম্মদ নুরুল মুনাওয়ার (), আল্লামা মুফতি মুহাম্মদ ওবাইদুল হক নঈমী ()। তকরির পেশ করেনসোবহানিয়া আলিয়া মাদ্রাসার প্রধান মুহাদ্দিস আল্লামা কাজী মুঈনুদ্দীন আশরাফী, জমিয়াতুল ফালাহ্‌ জাতীয় মসজিদের খতিব অধ্য আল্লামা ক্বারী সৈয়দ আবু তালেব মুহাম্মদ আলাউদ্দীন আল কাদেরী, অধ্য আল্লামা মুফতি আহমদ হোসাইন আল কাদেরী, মুফতি মুহাম্মদ বখতেয়ার উদ্দীন আল কাদেরী, মওলানা সৈয়দ মুহাম্মদ বশির উল আলম, মওলানা সাখাওয়াত হোসাইন বারকাতী, মওলানা সৈয়দ মুহাম্মদ হাসান আজহারী, মওলানা হাফেজ মুহাম্মদ মহিউদ্দীন আল কাদেরী, মওলানা হারুনুর রশিদ আল কাদেরী, মওলানা হোসাইন আহমদ ফারুকী, মওলানা আব্দুস শুক্কুর আনসারী, মওলানা ইব্রাহিম আল কাদেরী। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

x