১৩০০০ সিএনজি স্ক্রাপ ঘোষণা করার সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করার আবেদন

সোমবার , ৭ মে, ২০১৮ at ৪:২৭ পূর্বাহ্ণ
30

আমাদের দেশে নিম্ন মধ্যবিত্ত অব. সরকারি সৎ কর্মকর্তা, চালক নিজে কিংবা ছোট ব্যবসায়ীরাই সিএনজির মালিক। অনেকেরই কেবল একটা সিএনজি আছে তারা পরিবারের প্রয়োজনে ব্যবহার করে বাড়তি সময়ে সংসার খরচের কিছুটা সাশ্রয় হয়। গতবার বুয়েট চুয়েটের ইঞ্জিনিয়ারের পরামর্শে তিন বছর ফিটনেস বাড়ানো হয়েছিল যদিও গ্যাস সিলিন্ডার বাস্ট হওয়ার হার নগণ্য। এবারও তাদের পরামর্শে স্ক্রাপ করার সিদ্ধান্ত কিন্তু কেন? সিলিন্ডারের আয়ু শেষ হলে কেবল সিলিন্ডার বদল করলেই তো হবার কথা কারণ অন্য পার্টস সব বদল করা যায় এবং সিএনজি সব সময় নতুন থাকে। বলা হচ্ছে মালিককে রিপ্লেসমেন্ট দেবে কিন্তু টাকাটা মালিক কোথা থেকে পাবে। এক সাথে এতগুলো সিএনজি স্ক্রাপ করলে চালক মালিক সবাই বিপদে পড়বে। জনসাধারণের চলাচলেও ব্যাঘাত হবে। তাই জনস্বার্থে চালক, গরিব মালিকের স্বার্থে সব সিএনজি স্ক্রাপ ঘোষণা করার সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করার জন্য আবেদন জানাচ্ছি। বিষয়টি জরুরি বলে মাননীয় কর্তৃপক্ষকে আবেদন জানাই। যেহেতু মালিকানা ঠিক রাখার সরকারি সিদ্ধান্ত রয়েছে তাই কেবল প্রয়োজনে গ্যাস সিলিন্ডার বদলের নির্দেশ দেয়া যেতে পারে।

মুক্তিযোদ্ধা প্রকৌশলী জয়কেতু বড়ুয়া, হালিশহর কে ব্লক, চট্টগ্রাম।

x