শুকলাল দাশ

ঈদে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চল থেকে প্রতিদিন অতিরিক্ত যাত্রী পরিবহনের জন্য পূর্বাঞ্চলের পাহাড়তলী কারখানায় ৯০টি অতিরিক্ত কোচ মেরামত করা হয়েছে। নিয়মিত প্রতিটি ট্রেনের সাথে এই কোচগুলো যুক্ত করা হবে। এবার কারখানার তত্ত্বাবধায়ককে ৮৬টি কোচ মেরামত করার জন্য টার্গেট দেয়া হয়েছিল। কিন্তু টার্গেটের চেয়েও বেশি কোচ মেরামতের নজির স্থাপন করেছেন শ্রমিকরা। অন্যান্য বছর টার্গেট মোতাবেক কোচ মেরামত করা সম্ভব হতো না বলে জানা গেছে। কারখানার যে শ্রমিকরা কোচগুলো মেরামত করেছেন তারা নিজেরা ১০/১২টি কোচ নিয়ে ঈদের আগে ‘ঈদ স্পেশাল’ নামে বিশেষ সার্ভিসে নোয়াখালী ও চাঁদপুর যাত্রা করবেন। প্রসঙ্গত, প্রতিবছরই পাহাড়তলী কারখানায় যে সব শ্রমিক ঈদ উপলক্ষে কোচ মেরামত করেন তারা সেখান থেকে কিছু কোচ দিয়ে নিজেরা ঈদে বাড়ি যাওয়ার জন্য একটি স্পেশাল ট্রেন সাজিয়েগুছিয়ে নিয়ে যান। এ যেন অনেকটা আনন্দ করেই বাড়ি ফেরা। এটা একটা অলিখিত নিয়মে পরিণত হয়েছে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলে। এই ব্যাপারে পাহাড়তলী কারখানার তত্ত্বাবধায়ক মো. মহিউদ্দিন গতকাল আজাদীকে জানান, আমরা যে ৯০টি কোচ মেরামত করেছি তার মধ্যে সোমবার (গতকাল) পর্যন্ত ৭৯টি বুঝিয়ে দিয়েছি। আর ১১টি কালপরু দিয়ে দেবো।

তিনি জানান, মেরামত করা কোচ নিয়ে ‘ঈদ স্পেশাল’ নামে একটি ট্রেন কারখানার শ্রমিকদের নিয়ে নোয়াখালী যাত্রা করবে বৃহস্পতিবার। একই দিন আরেকটি গ্রুপ চাঁদপুর রুটে যাত্রা করবেন। এছাড়াও সিলেট, আখাউড়া, ভৈরব রুটের ট্রেনের সাথেও কারখানার শ্রমিকদের জন্য একটি করে কোচ সংযোজন করা হয়।

তিনি বলেন, পাহাড়তলী কারখানায় ২২শ’ শ্রমিক প্রয়োজন। কিন্তু শ্রমিক আছেন মাত্র ১২শ’। তারপরও শ্রমিকরা এই রমজানের দিনে বিকাল বেলা পর্যন্ত কাজ করে টার্গেটের চেয়ে ৪টি বেশি কোচ মেরামত করেছেন।

এদিকে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের চট্টগ্রাম স্টেশন ম্যানেজার আবুল কালাম আজাদ জানান, ঈদের যাত্রা ২১ তারিখ থেকে শুরু হবে। আমরা সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছি। যাত্রীরা নিরাপদে যাত্রা করতে পারবেন।

প্রসঙ্গত, পাহাড়তলীর পাশাপাশি নীলফামারীর সৈয়দপুর কারখানায়ও ৩৬টি মিটার গেজ কোচ মেরামত করা হয়েছে। এগুলোও রেলওয়ের পূর্বাঞ্চলে যুক্ত হবে। প্রতিটি ট্রেনের নির্ধারিত আসনের যাত্রীদের পাশাপাশি অতিরিক্ত ১২৬টি কোচে ঈদে প্রতিদিন ৮হাজার ৭৮৪জন বাড়তি যাত্রী পরিবহন করা সম্ভব হবে বলে জানা গেছে। সব মিলে এবারের ঈদে ট্রেনে প্রতিদিন বিভিন্ন রুটে ২০ হাজার যাত্রী পরিবহন করবে বলে জানিয়েছেন আবুল কালাম আজাদ।

LEAVE A REPLY