শফিকুল ইসলাম চৌধুরী জীবনের প্রতিটি কর্মের মধ্যে নিহিত ছিল মানবতার কল্যাণ। যার কারণে তিনি আজো সকলের অন্তরে স্থান করে আছেন। নিজ কর্মে বেঁচে থাকবেন তিনি। এছাড়াও ছিলেন অবহেলিত মানুষের দাবি আদায়ে এক সোচ্চার ব্যক্তি। যার কাছে এসে সাধারণ মানুষ আশ্রয়স্থল হিসেবে মনে করত। এমন ব্যক্তির শূন্যতা কখনো পূরণ হওয়ার নয়। গতকাল বুধবার বিকেলে রাউজান প্রেস ক্লাবের উদ্যোগে মুন্সিরঘাটাস্থ একটি কমিউনিটি সেন্টারে শফিকুল ইসলাম চৌধুরী স্মরণ সভায় বক্তারা এসব কথা বলেন। সভার উদ্বোধক ছিলেন রাউজান উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জোনায়েদ কবির সোহাগ। প্রধান অতিথি ছিলেন রাউজান পৌরসভার প্যানেল মেয়র আলহাজ্ব বশির উদ্দিন খান। প্রধান আলোচক ছিলেন রাউজান পৌর সভার ২য় প্যানেল মেয়র জমির উদ্দিন পারভেজ। প্রধান বক্তা ছিলেন দৈনিক পূর্বকোণে সহ সম্পাদক জাহাঙ্গীর টুটুল। বিশেষ বক্তা ছিলেন রাউজান উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা চৌধুরী আবদুলহ্মাহ আল মামুন। রাউজান প্রেস ক্লাবের সভাপতি তৈয়ব চৌধুরীর সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি শফিউল আলম, শুভেচ্ছা বক্তব্য প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি জাহেদুল আলম, সাবেক সভাপতি এম.বেলাল উদ্দিন। রাউজান প্রেস ক্লাব সাধারণ সম্পাদক এসএস ইউসুফ উদ্দিন ও অনলাইন প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক গাজী জয়নাল আবেদীনের পরিচালনায় বিশেষ অতিথি ছিলেন রাউজানের ইউপি চেয়ারম্যান বিএম জসীম উদ্দিন হিরু, নুরুল ইসলাম চৌধুরী শাহাজান, ইয়াছিন হোসাইন হায়দরী, মো.জিয়াউর রহমান, রাউজান উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা মিজানুর রহমান মজুমদার, সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা আবদুল মোয়াইমেন, সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা আবুদল মোমেন, আহসান হাবিব চৌধুরী, আলী আকবর তৈয়বী, সাহেদুর রহমান মোরশেদ, নেজাম উদ্দিন রানা, জাহাঙ্গীর নেওয়াজ, কামাল উদ্দিন, হাবিবুর রহমান, নাজিম উদ্দিন মিঞাজী, সাইফুল ইসলাম নিজামী, মোহাম্মদ আসিফ, সাইদুল ইসলাম, সাজ্জাদ ইসলাম, সাজ্জাদ মাহামুদ, আরমান সিকদার, সাহারিয়ার সাকিব, মো.রিয়াদ, আবু রায়হান। অনুষ্ঠান শেষে অতিথিবৃন্দ ইফতার মাহফিলে অংশগ্রহণ করেন। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

LEAVE A REPLY