পটিয়া প্রতিনিধি

কর্ণফুলী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীক প্রার্থীদের বিজয় ছিনিয়ে আনতে একাট্টা হয়ে মাঠে নেমেছেন আ’লীগ নেতৃবৃন্দ। এ নির্বাচনের প্রথম দিকে আ’লীগের শক্তিশালী বিদ্রোহী প্রার্থী ও চরলক্ষ্যার বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলীকে নিয়ে দল বেকায়দায় পড়েন। গত ২ আগস্ট ভূমি প্রতিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ ও দক্ষিণ জেলা আ’লীগের শীর্ষনেতৃবৃন্দের অনুরোধে বিদ্রোহী প্রার্থী মোহাম্মদ আলীর মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নেয়। এতে নির্বাচনে আ’লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থীসহ দলের মধ্যে নতুন করে গতি সঞ্চার হয়েছে। কর্ণফুলীতে এখন আ’লীগের দল গোছানোর পাশাপাশি চলছে নির্বাচনী লড়াইয়ের প্রস্তুতি।
আগামী ২০ আগস্ট নবগঠিত কর্ণফুলী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আ’লীগের নৌকা প্রতীক বিজয়ে বর্তমানে একাট্টা হয়ে কাজ করছেন আ’লীগের দলীয় নেতৃবৃন্দ ও কর্মী সমর্থকেরা। যে কোন মূল্যে তারা প্রথমবারের মত অনুষ্ঠিতব্য উপজেলা নির্বাচনের ফল আ’লীগ ঘরে তুলতে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করছে। এখানে ইসলামিক ফ্রন্টের চেয়ারম্যান প্রার্থী থাকলেও মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে দেশের দুই প্রধান দল আ’লীগের নৌকা ও বিএনপির ধানের শীষ প্রতীকের মধ্যে। তাই দুই দলই খুব কৌশলী হয়ে কাজ করছে নির্বাচনে বৈতরণী পার হতে। এদিকে গত সোমবার চরলক্ষ্যা ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী পারিবারিক একটি অনুষ্ঠান শেষে তার বাড়িতে কেন্দ্রীয়-দক্ষিণ জেলা ও কর্ণফুলী উপজেলা আ’লীগ নেতৃবৃন্দ একমঞ্চে মিলিত হয়।
এ সময় আ’লীগ প্রার্থীদের পক্ষে ভোট চেয়েছেন কেন্দ্রীয় আ’লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম ও দক্ষিণ জেলা আ’লীগের সভাপতি মোসলেম উদ্দীন আহমদ। এছাড়াও এক মঞ্চে বসে কেন্দ্রীয় নেতাদের সাথে একাত্মতা পোষণ করে আনুষ্ঠানিক ভাবে নৌকার পক্ষে ভোট চেয়েছেন উপজেলা চেয়ারম্যান পদে প্রত্যাহারকৃত চরলক্ষ্যা ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী। গতকাল সোমবার বিকেলে চরলক্ষ্যা ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলীর নিজ বাড়িতে এক নির্বাচনী সভায় কেন্দ্রীয়, জেলা, উপজেলা ও স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা নৌকা প্রার্থীকে বিজয়ী করতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার আহবান জানান। এসময় নৌকা প্রতীকের উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী ফারুক চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী দিদারুল ইসলাম দিদার ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী বানাজা বেগম কর্ণফুলী উপজেলাকে মডেল উপজেলায় রূপান্তরে সবাইকে নৌকা প্রতীকে ভোট দেয়ার আহবান জানান।
নির্বাচনী সভায় বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় আ’লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, দক্ষিণ জেলা আ’লীগের সভাপতি মোসলেম উদ্দীন আহমদ, সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, সহ-সভাপতি মোতাহেরুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রদীপ দাশ, সদস্য মুছা চেয়ারম্যান, নাছির আহমদ চেয়ারম্যান, এসএম ইসলাম, আবু ছালেহ, ছিদ্দিক আহমদ বিকম, কর্ণফুলী উপজেলা আ’লীগের সেক্রেটারি হায়দার আলী রণি, সাবেক সভাপতি মোহাম্মদ আলী, দক্ষিণ জেলা শ্রমিক লীগের সেক্রেটারি ইঞ্জিনিয়ার ইসলাম আহমদ, চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী, চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, চেয়ারম্যান দিদারুল আলম দিদার, চেয়ারম্যান রফিক আহমদ, কর্ণফুলী উপজেলা আ’লীগের নেতা জহুর সওদাগর, সৈয়দ আহমদ, এমএ মারুফ, রফিক আহমদ, জসিম উদ্দীন, কর্ণফুলী উপজেলা যুব লীগের সভাপতি সোলায়মান তালুকদার, সেক্রেটারি সেলিম হক, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সেক্রেটারি আমজাদ হোসেন প্রমুখ। দলীয় আনুগত্য মেনে উপজেলা চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন প্রত্যাহার করায় চরলক্ষ্যা ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলীকে ধন্যবাদ জানান কেন্দ্রীয় ও জেলা আ’লীগের নেতৃবৃন্দ। এসময় চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর প ে হাতে হাত মিলিয়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার ঘোষণা দেন।
নির্বাচনীয় সভায় কেন্দ্রীয় ও জেলা আ’লীগের নেতারা বলেন, কর্ণফুলীকে উপজেলা ঘোষণার মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী আমাদের মাত্র ৫ ইউনিয়ন মিলে একটি উপজেলা উপহার দিয়েছেন। তাই নৌকা প্রতীকের প্রার্থীকে বিজয়ী করে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে উপহার দিতে হবে। কারণ তিনি কর্ণফুলীকে উপজেলা ঘোষণা করেছেন। আ’লীগ সরকারের আমলেই কর্ণফুলীতে শতভাগ বিদ্যুতায়ন সম্ভব হয়েছে। কর্ণফুলীতে যে উন্নয়ন চলছে তার ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে নৌকা প্রতীকের প্রার্থীকেই ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করতে হবে। সভার শুরুতে প্রার্থীদের পরিচয় করিয়ে দেন কেন্দ্রীয় ও জেলা আ’লীগের নেতৃবৃন্দ।
দক্ষিণ জেলা আ’লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক ও দলীয় চেয়ারম্যান প্রার্থী ফারুক চৌধুরী বলেন, মোহাম্মদ আলী আমাদেরই দলের একজন। তিনি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন ফরম নেয়ার পরও দলের সিনিয়র নেতৃবৃন্দের অনুরোধে মনোনয়ন প্রত্যাহার করায় আমি ব্যক্তিগত ও দলের প থেকে ধন্যবাদ জানায়।
চরল ্যা ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী জানান, জনগণের অনুরোধে আমি উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন নিই। সর্বশেষ মাননীয় ভূমিপ্রতিন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ ও দক্ষিণ জেলা আ’লীগের সভাপতি মোসলেম উদ্দিন আহমেদসহ দলীয় নেতৃবৃন্দের অনুরোধে ও দলের প্রতি সম্মান দেখিয়ে আমি আমার মনোনয়ন প্রত্যাহার করেছি। এখন আমি নৌকা প্রতীকের প েই নির্বাচনে কাজ করব।

LEAVE A REPLY