ভারতের কাশ্মির-উত্তরাখন্ডে প্রবেশের হুমকি দিয়েছে চীন। নিজেদের সীমান্ত থেকে সেনা প্রত্যাহার করে নিতে ভারতকে হুশিয়ারি দিয়েছিল চীন। কিন্তু তাদের সেই হুশিয়ারি গায়ে মাখেনি ভারত। সেনা প্রত্যাহার না করায় ভারতকে হুমকি দিয়ে চীনের তরফ থেকে বলা হয়েছে, আমরা যদি উত্তরাখন্ড বা কাশ্মিরে ঢুকে পড়ি তখন কী হবে?
প্রায় দু’মাস ধরে সিকিম সেক্টরের ডোকালামে মুখোমুখি অবস্থান করছে চীন এবং ভারতের সেনারা। বিতর্কিত ওই অঞ্চলে অবৈধভাবে রাস্তা নির্মাণে চীনের সেনাদের বাধা দিয়েছে ভারতীয় সেনারা। চীনের দাবি ওই অঞ্চলে নিজেদের এলাকাতেই রাস্তা নির্মাণ করছিল তারা। ডোকালাম থেকে অবিলম্বে ভারতকে সেনা প্রত্যাহার করে নেয়ার দাবি জানিয়েছে চীন। এদিকে, ভুটান বলছে ডোকালাম তাদের। কিন্তু চীন সেখানে ভুটানের আঞ্চলিক সীমায় অবৈধভাবে প্রবেশ করেছে। এক বিবৃতিতে চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছেন, ‘দুই মাস ধরে অবৈধভাবে চীনের আঞ্চলিক এলাকায় অবস্থান করছে ভারতীয় সেনারা। ওই অঞ্চলের রাস্তায় মালামাল এবং বিপুল সংখ্যক সেনা বাহিনী মোতায়েন করেছে ভারত। এটা অবশ্যই শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য নয়।’ চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বাউন্ডারি অ্যান্ড ওশেন অ্যাফেয়ার্সের উপ-মহাপরিচালক ওয়াং ওয়েনলি বলেন, ‘যদি সেখানে একজন মাত্রও ভারতীয় সেনা থাকে তাহলেও সেটা আমাদের সার্বভৌমত্ব এবং আঞ্চলিক ভূখন্ডে প্রবেশাধিকার লঙ্ঘন করছে।’ অপরদিকে চীনের অভিযোগ অস্বীকার করেছে ভারত।

LEAVE A REPLY